হিযবুত তাহরীরের লিফলেট বিতরণ | ইবিডি নিউজ

হিযবুত তাহরীরের লিফলেট বিতরণ

bdগতকাল বৃহস্পতিবার মধ্যরাত থেকে জঙ্গি ও সন্ত্রাসীদের ধরতে সাঁড়াশি অভিযানে নেমেছে পুলিশ। সাত দিন চলবে এ অভিযান। প্রথম দিন শুক্রবার সহস্রাধিক আটক হয়েছে। তবে পুলিশের চোখে ধুলা দিয়ে শুক্রবার ভোরেই পাবনায় খুন হলো হিন্দু সেবাশ্রমের কর্মী। এর কোনো ক্লু এখনো খুঁজে পেল না পুলিশ।

এদিকে রাজশাহীতে ঘটেছে আরেক ঘটনা। পুলিশকে বুড়ো আঙ্গুল দেখিয়ে প্রধানমন্ত্রীর বিরুদ্ধে লিফলেট বিতরণ করেছে নিষিদ্ধ ঘোষিত ইসলামি সংগঠন হিযবুত তাহরীর।

সংগঠনটির কর্মীরা রাজশাহী মহানগরীর উপশহর কেন্দ্রীয় জামে মসজিদে জুমার নামাজ শেষে লিফলেট বিতরণ করে। এসময় স্থানীয় কয়েকজন মুসল্লি ধাওয়া দিলে তারা পালিয়ে যায়।

মুসল্লিদের কয়েকজন জানান, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার শাসনকে ‘জুলুমের শাসন’ উল্লেখ করে দেশের বর্তমান রাজনৈতিক প্রেক্ষাপটে হিযবুত তাহরীরের পক্ষ থেকে জাতির উদ্দেশে বিশেষ আহ্বান জানানো হয়েছে ওই লিফলেটে। নামাজ শেষে তিন যুবক লিফলেটগুলো বিতরণ করছিল। আশেপাশে আরো ৭ থেকে ৮ জন কর্মী অবস্থান করছিল।

লিফলেটগুলো বিতরণের সময় মুসল্লিদের মধ্যে উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে। ওই সময় কয়েকজন মুসল্লি বাধা দেয়। এক পর্যায়ে উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়লে হিযবুত তাহরীরের কর্মীরা পালিয়ে যায়। পরে স্থানীয় মুসল্লিরা বেশকিছু লিফলেট ছিঁড়ে ফেলে।

বিতরণ করা লিফলেটে শুক্রবার, ১৭ জুন ২০১৬ তারিখ উল্লেখ করা হয়েছে। নিচের অংশে ছোট্ট করে হিযবুত তাহরীর উলাই’য়াহ্ বাংলাদেশ-এর মিডিয়া অফিসের সঙ্গে যোগাযোগের মোবাইল নম্বর, ই-মেইল এবং ওয়েবসাইটের ঠিকানা দেয়া আছে।

এ বিষয়ে রাজশাহী মহানগরীর বোয়ালিয়া থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) শাহাদাত হোসেন বলেন, এ ধরনের কোনো ঘটনাই উপশহর কেন্দ্রীয় জামে মসজিদে ঘটেনি। কে বা কারা এ ধরনের লিফলেট ছড়িয়ে ঘটনাটি ঘটিয়েছে।

রাজশাহী মহানগর পুলিশের মুখপাত্র ও রাজপাড়া থানার সহকারী কমিশনার (এসি) ইফতেখায়ের আলমের কাছে এ ব্যাপারে জানতে চাইলে বলেন, বিষয়টি তার জানাই নেই। বোয়ালিয়া থানা থেকেও এ ধরনের কোনো সংবাদ তারা পাননি। তবে বিষয়টি ঘটে থাকলে ক্ষতিয়ে দেখা হবে।